বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:০৫ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
এক বিন্দু অক্সিজেন মানুষকে বাঁচাবে, এক টুকরো স্বপ্ন শিশুকে বাঁচাবে ! শৈশব পেড়িয়ে কৈশোর দেখিনি, কালকে আমার বিয়ে! শোকের মাসে জবি সাংবাদিকদের নির্বাচন, গঠনতন্ত্র বহির্ভূত কার্যক্রমে ফলাফল স্থগিত বামনায় সাংবাদিকদের মাঝে কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতার করোনা সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণ চরাঞ্চল ঘুরে করোনা টিকার ফ্রি নিবন্ধন করাচ্ছেন ইউপি চেয়ারম্যান চরফ্যাশনে যুবককে ফাঁসাতে গিয়ে পুলিশ অবরুদ্ধ তৃতীয় দিনেও বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে বাড়ি ফিরেছে জবি শিক্ষার্থীরা “সেরা রাঁধুনীতে ফাষ্ট রানার্স আপ নাদিয়া নাতাশা” ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত সাত কলেজের ভর্তি পরীক্ষা অক্টোবরে করোনা মোকাবিলায় মোদির মন্ত্রিসভায় রদবদল, শপথ নিলেন ৪৩ মন্ত্রী

বিবাহিত হয়েও স্বপদে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতা তুষার

আলোরদেশ ডেস্ক
  • প্রকাশিত হয়েছেঃ রবিবার, ২২ নভেম্বর, ২০২০
  • ৩৭১ বার পড়া হয়েছে
কুতুব নূর তুষার। -আলোর দেশ

বিশেষ প্রতিনিধি :


বাংলাদেশ ছাত্রলীগের বিতর্কিত নেতাদের বিগত দিনের কমিটি থেকে অব্যাহতি দিলেও স্বপদে বহাল আছেন কেন্দ্রীয় কমিটির উপ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় বিষকয়ক সম্পাদক খন্দকার কুতুব নূর তুষার। তার বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ কোন ব্যবস্থাই নেয় নি  বলে অভিযোগ করেছে পদবঞ্চিতরা।

পদবঞ্চিতরা অভিযোগ করে বলেন, বিবাহিত হয়েও খন্দকার কুতুব নূর তুষার স্বপদে বহাল থাকার জন্য আমরা তিব্র নিন্দা জানাচ্ছি ।

যদিও ছাত্রলীগের গঠনতন্ত্রের ৫-এর গ ধারা অনুযায়ী বিবাহিত ব্যক্তি ছাত্রলীগের কমিটিতে স্থান পাবেন না। এদিকে গঠনতন্ত্র লঙ্ঘন করে তাকে কেন্দ্রীয় কমিটির স্বপদে  স্থান দেয়ায় প্রতিবাদ করেছেন পদবঞ্চিত অনেকে।

জানা যায়,  কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের উপ- বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার কুতুব নুর তুষার  ২০১৪ সালের ২৫ জুন  ৫০ হাজার টাকার দেনমোহর ধার্য্য করে  শের ই বাংলা নগর ০৮, রায়ের বাজার ঢাকা ১২০৭ কাজী অফিসে দিনাজপুর সদর থানার ইসলাম বাগ গ্রামের পিতা মো: গোলাম ফারুক মিনহাজুল হাসান,  মাতাঃ রীনা আক্তার এর কন্যা ফারহা আলীম মীম কে বিবাহ করেন। বিবাহের সাক্ষী হিসেবে  চুয়াডাঙ্গার জসীম উদ্দিন ও ঝিনাইদহ এর ফরহাদ হোসেন। বিবাহের কাজী ছিলেন জুবায়ের রহমান। বিবাহের রেজিস্ট্রার  ছিলেন মুহাম্মদ এমদাদুল্লাহ। বিবাহের রেজিস্ট্রার ভিলিয়ম নং ১/২০১৪ পৃষ্ঠা নম্বর ৮৮।

কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কমিটির সদস্যদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ থাকার কারণে বর্তমান সভাপতি এবং  সাধারণ সম্পাদক সংগঠন থেকে ৩২ জনকে বাদ দিলেও উপ- বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার কুতুব নূর তুষারকে বাদ দেওয়া হয়নি। তার বিরুদ্ধে  বিবাহিত হওয়ার অভিযোগ  থাকা সত্বেও কেন তার  বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি তা নিয়ে আলোচনা সমালোচনা হচ্ছে বিভিন্ন মহলে।

বিয়ের কাবিন (প্রথম পাতা)
বিয়ের কাবিন (দ্বিতীয় পাতা)

কুতুব নূর তুষার আলোর দেশকে বলেন, ‘আমার বিয়ের বিষয়টি সরকারের গোয়েন্দা সংস্থা একাধিকবার যাচাই করেছে, রিপোর্ট দিয়েছে। নেগেটিভ রিপোর্ট দিলে তো আমি এতদিন থাকতাম নাহ্।’

এ বিষয়ে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকে মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হইলেও পাওয়া যায়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© 2020 সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত আলোরদেশ লিমিটেড। এই সাইটের কোনো কন্টেন্ট অনুমতি ছাড়া কপি করা বেআইনি।
প্রযুক্তি সহযোগিতায়ঃ UltraHostBD.Com
RtRaselBD